সাতপাকে বাঁধা পড়লেন রাজ-শুভশ্রী

বিনোদন

রাজ যেমন পরিচালক হিসেবে সফল তেমনি শুভশ্রীও নায়িকা হিসেবে ইন্ডাস্ট্রিতে প্রতিষ্ঠিত। তাই তাদের দু’জনের বিয়ে নিয়ে সবার আকর্ষণ অনেক বেশি। শুক্রবার (১১ মে) রাতে গাঁটছড়া বাঁধলেন রাজ-শুভশ্রী.

দক্ষিণ চব্বিশ পরগণার বাওয়ালি রাজবাড়িতে আয়োজন করা হয় তাদের জাঁকজমক বিয়ের অনুষ্ঠানের। রাত ১০টা ৪০ মিনিট থেকে ১২টা ১৫ মিনিট পর্যন্ত ছিলো ‘রাজশ্রী’র বিয়ের লগ্ন। সনাতন ধর্মের রীতি মেনে বাঙালি আয়োজনে সিঁদুর পরানো, শুভদৃষ্টি, সাতপাক, মালাবদল সবই এই সময়ের মধ্যে শেষ হয়।

ফ্যাশন ডিজাইনার সব্যসাচী’র ডিজাইন করা লাল বেনারসি গায়ে জড়িয়ে, সোনার গয়না ও গলায় ফুলের মালা পরে মণ্ডপে হাজির হয়েছিলেন ‘নবাব’ খ্যাত নায়িকা। মাথায় টোপর, গায়ে পীত রঙের পাঞ্জাবি ও সাদা ধূতি পরে বিয়ের অনুষ্ঠানে আসেন বর রাজ।

দুই পরিবারের সদস্য ও ঘনিষ্ঠদের উপস্থিতিতে শেষ হয় বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা। তবে তাদের বিয়েতে টালিউড ইন্ডাস্ট্রির কোনো তারকার দেখা মেলেনি।

গত ৮ মে ককটেল পার্টি দিয়ে শুরু হয় রাজ-শুভশ্রী’র বিয়ের আয়োজন। একে একে আইবুড়ো ভাত, মেহেদি পার্টি, গায়ে হলুদসহ সব অনুষ্ঠানিকতা শেষ করেন তারা। আগামী ১৩ মে অনুষ্ঠিত হবে তাদের বিবাহোত্তর সংবর্ধনা।

আমন্ত্রিত অতিথিদের আপ্যায়ন মেন্যুতে ছিলো চাইনিজ, ইন্ডিয়ান ও বাঙালি খাবারের নানা পদ। আইসক্রিম থেকে শুরু করে ক্ষীরের পাটিসাপটারও ব্যবস্থা ছিলো।

হুট করে গত মার্চে বাগদান ও রেজিস্ট্রি বিয়ের পর্ব সেরে ফেলেন ওপার বাঙলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী শুভশ্রী ও পরিচালক রাজ। এবার অগ্নিসাক্ষী রেখে ধর্মীয় নিয়ম মেনে বিয়ে করলেন তারা।

আপনার মন্তব্য লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *